যেগুলো মাথায় রাখতে হবে, উইন্ডোজ ১০ এর নতুন ভার্সনে আসার আগে

কর্তৃক প্রযুক্তি সারাদিন
0 মন্তব্য 467 ভিউজ

আমরা অনেকেই উইন্ডোজ ব্যবহার করি। কেউ উইন্ডোজ ১০ তো কেউ ৭ আবার কেউ যক্ষের ধনের মত এক্সপি ভার্সন ব্যবহার করি। কিন্তু সম্প্রতি অনেকেই উইন্ডোজ ১০ এর সর্বশেষ ভার্সন ২০০৪ বিল্ড এডিশান অনেকেই আকর্ষণ করেছে আর তাই অনেকে পুরাতন অপারেটিং সিস্টেম থেকে এই নতুন উইন্ডোজে আসতে চাচ্ছে। যদি আপনিও ভেবে থাকেন যে উইন্ডোজ ১০ এর নতুন ভার্সনে সুইচ করবেন তাহলে সুচ করার আগে আপনাকে যেগুলো মাথায় রাখতে হবে সেগুলো একবার জেনে নিন।

সবার আগে ঠিক করতে হবে যে আপনি কিভাবে উইন্ডোজ আপডেট করবেন। যদি আপনি উইন্ডোজ ১০ এর পুরাতন কোন ভার্সনে থেকে থাকেন তাহলে উইন্ডোজ আপগ্রেড অ্যাসিস্ট্যান্ট ডাউনলোড করে নিজের ইচ্ছামত আপডেট করুন। আর যদি উইন্ডোজ ৮ বা ৭ ব্যবহার করে থাকেন তাহলে আপনি উইন্ডোজ মিডিয়া ক্রিয়েশান টুল ডাউনলোড করে একটা ইউএসবি ড্রাইভকে ইন্সটলেশান মিডিয়া বানিয়ে ইন্সটল করুন।

উপরের পধতিই মাইক্রোসফট অনুসরণ করতে বলে। এতে আপনি জেনুইন উইন্ডোজ পাবেন আবার বিনামূল্যেও ইন্সটল করতে পারবেন। এর পরে শুধু সিরিয়াল নাম্বার দিয়ে উইন্ডোজ অ্যাক্টিভেট করলেই হয়ে গেল।

কিন্তু আপনি উইন্ডোজ ইন্সটল করলেন তবে গতি হয়ত আগের চাইতে একটু কম পাবেন। এর কারণ হলো অন্তুন উইন্ডোজ অনেক হেভি তাই কাজ করার জন্য যথেষ্ট মেমরি আর প্রোসেসর দরকার হয়। মেমরি ৪ গিগাবাইট আর ৭ম প্রজন্মের ইন্টেল কোর আই থ্রি প্রোসেসর হলেই উইন্ডোজ ১০ ভালই চলবে। তবে চালু হতে হয়ত একটু বেশি সময় নেবে।

তাহলে যদি আপনার মনে উইন্ডোজ ১০ এ আসার ইচ্ছা থাকে তাহলে উপরের বিষয়গুলো মাথায় রাখতে হবে।

0 মন্তব্য
0

তুমিও পছন্দ করতে পার

মতামত দিন