VAR-technology-worldcup
ফিচার

২০১৮ রাশিয়া ফুটবল বিশ্বকাপে প্রযুক্তির ছড়াছড়ি পর্ব-১

গত কয়েক ফুটবল বিশ্বকাপের প্রায় প্রতিটি বিশ্বকাপ ফুটবলে আমরা নতুন নতুন প্রযুক্তি দেখতে পাচ্ছি।ঠিক যেমন এবারের রাশিয়া ২০১৮ ফুটবল বিশ্বকাপে ব্যবহৃত হবে VAR (Video Assistant Referees) প্রযুক্তি।

কি এই VAR প্রযুক্তি?
VAR হচ্ছে সহকারী রেফারী এর একটি টিম। যারা মূল রেফারী এর সহকারী হিসেবে থাকবে কিন্তু কোন সিদ্ধান্ত দেবে না। প্রতিটি ম্যাচে ৩ জন Video Assistant Referee থাকবে। যখন মূল রেফারী মাঠের কোন ঘটনার জন্য সহযোগীতা চাইবে VAR টিম তখন ভিডিও বিশ্লেষণ করে মূল রেফারী-কে যা ঘটেছে তা জানিয়ে দিবে এবং এর সঠিক ফলাফল কি হতে পারে তা পূর্বঘটিত ঘটনার উপর ভিত্তি করে পরবর্তীতে মূল রেফারী জানিয়ে দিবে। ভিডিও বিশ্লেষণের জন্য VAR প্রযুক্তি টিমের সকল সম্প্রচার  ক্যামেরা ও দুটি অফসাইড নির্ধারনী ক্যামেরার উপর নিয়ন্ত্রণে থাকবে। সাধারণত এই ভিডিও বিশ্লেষণ কক্ষটি একটি নির্দিষ্ট কেন্দ্রে থাকে।

রাশিয়া ২০১৮ বিশ্বকাপে VAR:-
এবারের বিশ্বকাপের মোট ৬৪ ম্যাচেই ব্যবহৃত হবে এই প্রযুক্তি। মস্কো-তে VAR এর প্রযুক্তি টিম ভিডিও সঞ্চালন কেন্দ্রে থাকবে। মোট ১৩ জন Video Assistant Referee থাকবে এবারের এই বিশ্বকাপে।

VAR-technology

সমালোচনা:
নতুন এই প্রযুক্তি নিয়ে কিছু প্রশ্ন তবু থেকেই যায়।অনেক ফুটবল বিশেষজ্ঞ বলেছেন গোলের পর একজন প্লেয়ার উচ্ছাস না দেখিয়ে তাকিয়ে থাকবে রেফারীর দিকে।এতে খেলার তাৎক্ষণিক ফলাফলে যে উচ্ছাস সেটার কমতি হতে পারে।ফিফা তাই পরীক্ষামূলকভাবে গত বছর অনুষ্ঠিত কনফেডারেশন কাপে ব্যবহার করেছিল এই VAR।তাতে আর যাই হোক কোন ভুল সিদ্ধান্ত আসেনি।যদিও তা ছিল অনেক সময়সাপেক্ষ।
ফুটবল বিশ্বকাপকে বলা হয় “Greatest show on the earth”।
তাই VAR প্রযুক্তির মাধ্যমে এই আয়োজন আরো ত্রুটিমুক্ত এবং আনন্দের হোক এটাই আমাদের কাম্য।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *